তথ্য অধিদফতর (পিআইডি) গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ১০ নভেম্বর ২০২১

তথ্যবিবরণী ১০ নভেম্বর ২০২১

তথ্যবিবরণী                                                                                                                  নম্বর : ৫৩৫৪

যুক্তরাজ্য প্রবাসীদের বাংলাদেশের উন্নয়নে আরো অবদান রাখার সুযোগ রয়েছে

                                                                                             --বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী

ঢাকা, ২৫ কার্তিক (১০ নভেম্বর) :

          বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বলেছেন, যুক্তরাজ্য প্রবাসীদের বাংলাদেশের উন্নয়নে আরও অবদান রাখার সুযোগ রয়েছে। বাংলাদেশ এখন উন্নয়নের মহাসড়কে দ্রুত গতিতে এগিয়ে চলছে। প্রয়োজন বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ ও সেবা। অবকাঠামো খাত, তথ্য ও প্রযুক্তি খাত, বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাত, খনিজ সম্পদ আহোরণ ও উত্তোলন খাত, পরিকল্পিত নগরায়ন খাত, যোগাযোগ খাত ইত্যাদি খাতে উন্নত বিশ্বের ন্যায় উন্নয়ন করতে প্রবাসী বাংলাদেশিদের সহযোগিতা প্রয়োজন। এইসব খাতে বিনিয়োগও লাভজনক।

          প্রতিমন্ত্রী আজ বাংলাদেশের স্বাধীনতার ৫০ বছর উদ্যাপন  উপলক্ষ্যে যুক্তরাজ্যের রেডব্রিজের মেয়র আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

          তিনি রেডব্রিজের মেয়রকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, ১৯৭১ সালে বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধকে সমর্থন করার জন্য যুক্তরাজ্য ও যুক্তরাজ্যের জনগণের প্রতি আমরা কৃতজ্ঞ। রেডব্রিজ সাংস্কৃতিকভাবে অনেক সক্রিয় এবং এখানে প্রাণবন্ত বাংলাদেশিদের অবস্থানের বিষয়টিও আনন্দদায়ক। যুক্তরাজ্যে বাংলাদেশি বংশদূূত ৪ জন এমপি ও অসংখ্য কাউন্সিলর রয়েছে। বাংলাদেশের সার্বিক উন্নয়নে সকলের সহযোগিতা প্রয়োজন।

          অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মাঝে সংসদ সদস্য নাহিম রাজ্জাক, রেডব্রিজের মেয়র Roy Emmett, রেডব্রিজ কাউন্সিলের নেতা Jas Athwal, কাউন্সিলর Saima Ahmed বক্তব্য প্রদান করেন। এ সময় বিপুলসংখক প্রবাসী বাংলাদেশিরা উপস্থিত ছিলেন।

#

আসলাম/পাশা/নাইচ/এনায়েত/রফিকুল/জয়নুল/২০২১/২২০০ঘণ্টা

তথ্যবিবরণী                                                                                                                  নম্বর : ৫৩৫৩

আমাদের ভবিষ্যৎ নিয়ন্ত্রণ করবে আর্টিফিসিয়াল ইন্টেলিজেন্স

                                                                                  -- শিক্ষামন্ত্রী

ঢাকা, ২৫ কার্তিক (১০ নভেম্বর) :

          শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেছেন, আমাদের ভবিষ্যৎ নিয়ন্ত্রণ করবে আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স।  তাই আগামী শিক্ষা ব্যবস্থায় তথ্যপ্রযুক্তিকে বেশি গুরুত্ব দিতে হবে। উন্নত ও উন্নয়নশীল দেশের মধ্যে তথ্যপ্রযুক্তি শিক্ষার বৈষম্যের কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, অনেক উন্নয়নশীল দেশ তথ্যপ্রযুক্তির ব্যাপক পরিবর্তনের সাথে সমান তালে চলতে পারছে না। ফলে  ডিজিটাল গ্যাপ তৈরি হচ্ছে। তাই উন্নয়নশীল দেশসমূহের ভৌত অবকাঠামো উন্নয়নে ব্যাপক প্রযুক্তিগত সাপোর্ট প্রয়োজন।

          শিক্ষামন্ত্রী আজ ফ্রান্সের প্যারিসে ইউনেস্কো হেডকোয়ার্টারে ৪১ তম জেনারেল কনফারেন্সে ‘ফিউচার অভ এডুকেশন’  শীর্ষক এক প্রতিবেদনের ওপর  প্যানেল  আলোচনায় অংশ নিয়ে একথা বলেন।

          ভবিষ্যতের শিক্ষা ব্যবস্থার রূপরেখা তুলে ধরে শিক্ষা তিনি বলেন, বিশ্বের লাখ লাখ মানুষের মৌলিক শিক্ষা নিশ্চিত করতে যদিও ইউনেস্কো ব্যাপক অগ্রগতি অর্জন করেছে তথাপি মানব সভ্যতা বিশ্ব শান্তি ও নিরাপত্তা নিশ্চিতে আরো এগিয়ে যাবে এবং সঠিক শিক্ষাই তা নিশ্চিত করতে পারবে। আগামীর শিক্ষা ব্যবস্থা আমাদের পরবর্তী প্রজন্মকে ভালো মানুষ এবং দায়িত্বশীল বিশ্ব নাগরিক হিসেবে গড়ে তুলবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

          প্যানেল আলোচনা আরো অংশগ্রহণ করেন কিউবার শিক্ষা মন্ত্রী Ena Elsa Velazquez Cobiella, স্লোভেনিয়ার শিক্ষা মন্ত্রী Simona Kustec প্রমুখ।

          ইউনেস্কো ২০১৯ সালের সেপ্টেম্বর মাসে  জাতি সংঘের সাধারণ অধিবেশনে ফিউচার অভ্ এডুকেশন ইনিশিয়েটিভ কার্যক্রম শুরু করে। এই জন্যে ইথিওপীয়ার প্রেসিডেন্ট Sahle Work Zewde কে চেয়ারম্যান করে একটি কমিশন গঠন করা হয়। কমিটি দুই বছরে ১৯ টি বড় মিটিং করে ফিউচার অভ এডুকেশন  রিপোর্ট প্রস্তুত করে।

#

খায়ের/পাশা/নাইচ/এনায়েত/রফিকুল/জয়নুল/২০২১/২১৪০ঘণ্টা

Handout                                                                                                          Number : 5352

 

Poland Ambassador hands over 3.2 million AstraZeneca vaccines to Bangladesh

 

Dhaka, November 10 :

 

            The Government of Poland has provided 3.2 million AstraZeneca vaccines to Government of Bangladesh this morning as a form of solidarity to the friendly country’s fight against COVID-19 pandemic. 

 

            The Polish gesture covers a consignment contains 3272, 880 doses of the Covid-19 vaccine (Oxford AstraZeneca) as well as their transport to Dhaka through their own arrangement. Due to the size, the consignment is being sent in three batches. The first batch (1027,290 doses of vaccine) has been arrived today. The second batch (920,790 doses of vaccine) will arrive on 11 November and the third one (1324,800 doses of vaccine) will arrive on 14 November.  

 

            At the Padma State Guest House, Dhaka, in an unostantious ceremony, Prof. Adam Burakowski, Ambassador of Poland to Dhaka (resident in New Delhi) handed over the token vaccine doses to Bangladesh side. Lokman Hussain Mia, Senior Secretary of Health Services Division under the Ministry of Health and Family Welfare of the Government of Bangladesh and Rear Admiral (Retd.) Md. Khurshed Alam, Secretary, MAU and acting Foreign Secretary, received the token gifts from the Ambassador.

 

            The Ambassador of Poland stated that the COVID vaccines are donation to the Government of Bangladesh by the Government of Poland as a gesture of friendship to Bangladesh. He expressed hope that both the countries would soon be able to overcome the pandemic through shared efforts. The acting Foreign Secretary thanked the Government of Poland for standing by Bangladesh and mentioned that the friendly gesture would further strengthen the existing bilateral relationship between the friendly countries. Acting Foreign Secretary also appreciated the support of Poland in such a time when the Government of Bangladesh planned to inoculate its population.

 

            Senior officials of the Ministry of Foreign Affairs were present during the handover ceremony.

 

#

 

Tohidul/Pasha/Nice/Enayet/Rafiqul/Salim/2021/21.00 Hrs.

 

তথ্যবিবরণী                                                                                                 নম্বর:  ৫৩৫১

 

সকল ধর্মই সহিষ্ণুতা আর মানবিকতার শিক্ষা দেয়

                                           -- ধর্ম প্রতিমন্ত্রী

 

ঝালকাঠি, ২৫ কার্তিক (১০ নভেম্বর):   

 

          ধর্ম প্রতিমন্ত্রী মোঃ ফরিদুল হক খান বলেছেন, কোনো ধর্মই হানাহানি ও হিংসার কথা বলে না। সকল ধর্মই সহিষ্ণুতা আর মানবিকতার শিক্ষা দেয়। কোনো ধার্মিক ব্যক্তি অন্য ধর্মের মানুষের অধিকার ক্ষুণ্ন করতে পারে না।

 

          প্রতিমন্ত্রী আজ ঝালকাঠি জেলা প্রশাসনের সম্মেলন কক্ষে  ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ‘ধর্মীয় সম্প্রীতি ও  সচেতনতা বৃদ্ধিকরণ’ শীর্ষক ধর্মীয় সম্প্রীতি ও সচেতনতামূলক আন্তঃধর্মীয় সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন।

 

          প্রতিমন্ত্রী বলেন, সকলের ঐক্যবদ্ধ প্রচেষ্টায় বাংলাদেশের ধর্মীয় সম্প্রীতি অক্ষুণ্ন রাখতে হবে। সাংবিধানিক দায়বদ্ধতা থেকেই দেশের প্রতিটি নাগরিককে এ দায়িত্ব পালন করতে হবে। তিনি বলেন, সংখ্যাগরিষ্ঠ মুসলিম  জনগণের ওপর আরো বেশি দায়িত্ব প্রতিবেশী  অন্য ধর্মের মানুষের অধিকার সমুন্নত রাখা। তাদেরকে নিরাপদ রাখার পরিবেশ তৈরি করে দেওয়া।

 

          প্রতিমন্ত্রী বলেন, ঐতিহাসিক মদিনা সনদ, বিদায় হজের ভাষণ, মক্কা বিজয়ের ইতিহাস সাক্ষ্য দেয় মহানবী (সা.) অন্য ধর্মের অনুসারীদের প্রতি  সদাচরণ করতেন। সকলকে নিয়েই তিনি সমাজ পরিচালনা করেছেন। যে রাজনৈতিক দর্শন  বঙ্গবন্ধু ধারণ করতেন। মুসলমানদেরকে মহানবী (সা.) এর জীবন থেকে প্রকৃত শিক্ষা গ্রহণ করতে হবে।

 

          প্রতিমন্ত্রী বলেন, স্বাধীনতা  যুদ্ধের  পরাজিত শক্তি, বঙ্গবন্ধুর হত্যার সাথে যারা জড়িত ছিল, দেশজুড়ে বোমা হামলাকারী সেই উগ্র সাম্প্রদায়িক শক্তি আগামী নির্বাচনকে সামনে রেখে দেশে বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করার পরিকল্পনা করছে। তাদের ইন্ধনেই দুষ্কৃতকারীরা হিন্দু সম্প্রদায়ের বাড়ি ঘর, মন্দির/ পূজামণ্ডপে হামলা চালিয়েছে। এই অপশক্তিকে আগামী দিনে জনপ্রতিনিধি, প্রশাসন, জনগণ  ঐক্যবদ্ধভাবে প্রতিহত করবে।

 

          ঝালকাঠি জেলা প্রশাসক মোঃ জোহর আলীর সভাপতিত্বে সংলাপ অনুষ্ঠানে  আরো বক্তব্য রাখেন ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মোঃ মুনীম হাসান, ঝালকাঠির পুলিশ সুপার ফাতিহা ইয়াছমিন, ঝালকাঠি আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সরদার মোহাম্মদ শাহ আলম এবং ইসলামিক ফাউণ্ডেশনের উপপরিচালক মশিউর রহমান।

 

          প্রতিমন্ত্রী পরে কাউখালী শ্রীগুরু সংঘ কেন্দ্রীয় আশ্রম পরিদর্শন এবং এরপর কাউখালী উপজেলার পিজিএস উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ মাঠে  ইমাম, পুরোহিত, ধর্মীয় ও রাজনৈতিক  নেতৃবৃন্দের উপস্থিতিতে আন্তঃধর্মীয় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতা করেন।

#

আনোয়ার/পাশা/নাইচ/রাহাত/এনায়েত/রফিকুল/সেলিম/২০২১/২১.০০ ঘণ্টা

তথ্যবিবরণী                                                                                                                              নম্বর : ৫৩৫০

গত ৪ মাসে দেড় লক্ষাধিক কর্মীর বিদেশে গমন

                                  -- প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রী

ঢাকা, ২৫ কার্তিক (১০ নভেম্বর) :

            প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ বলেছেন, বর্তমানে  বিদেশে কর্মী গমনের হার বৃদ্ধি পেয়েছে। তিনি বলেন, গত জুলাই থেকে অক্টোবর মাস পর্যন্ত মোট দেড় লক্ষেরও বেশি কর্মী কর্মসংস্থানের উদ্দেশ্যে বিদেশে গেছেন। তিনি জানান, প্রতিনিয়ত বিভিন্ন দেশ থেকে কর্মী নিয়োগের চাহিদা পত্র আসছে।

            মন্ত্রী আজ সংসদ ভবনের পশ্চিম ব্লকের ২য় লেভেলের কেবিনেট কমিটি কক্ষে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির ১৪ তম সভায় এসব কথা বলেন।

            মন্ত্রী বলেন, বৈদেশিক কর্মসংস্থানের হার কোভিড পূর্ববর্তী অবস্থায় ফিরে এসেছে। এই প্রবাহ চলমান থাকলে বৈদেশিক কর্মসংস্থানের লক্ষ্যমাত্রা পূরণ হবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন। তিনি বলেন, বর্তমানে রেমিট্যান্স প্রবাহ কিছুটা কমলেও খুব শীঘ্রই এটা ঊর্ধ্বমুখী হবে।

            প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি আনিসুল ইসলাম মাহমুদের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য রাখেন কমিটির সদস্য মোয়াজ্জেম হোসেন রতন, মৃণাল কান্তি দাস, পংকজ নাথ ও সাদেক খান এবং মন্ত্রণালয়ের সচিব ড. আহমেদ মুনিরুছ সালেহীন।

            বৈঠকের শেষে মন্ত্রী মন্ত্রণালয়ের ২০২০-২১ অর্থবছরের বার্ষিক প্রতিবেদন কমিটির সভাপতি ও সদস্যদের হাতে তুলে দেন।

#

রাশেদুজ্জামান/পাশা/নাইচ/রাহাত/এনায়েত/রফিকুল/জয়নুল/২০২১/২০৫০ঘণ্টা

তথ্যবিবরণী                                                                                                                            নম্বর : ৫৩৪৯

৭২ এর সংবিধানকে কাটা-ছেঁড়া করে সাম্প্রদায়িক

বাংলাদেশ বানানোর অপচেষ্টা করেছিল জিয়াউর রহমান

                                                      -- নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী

রংপুর, ২৫ কার্তিক (১০ নভেম্বর) :

            পাকিস্তানিদের দোসর জিয়াউর রহমান, অবৈধভাবে রাষ্ট্র ক্ষমতা দখল করে বাংলাদেশের স্বাধীনতাকে ধ্বংস, খুনিদেরকে বাঁচানোসহ ’৭২ এর সংবিধানকে কাটা-ছেঁড়া করে বঙ্গবন্ধুর অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশকে সাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ বানানোর অপচেষ্টা করেছিল বলে মন্তব্য করেছেন নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী।

            প্রতিমন্ত্রী আজ রংপুর নগরীর টাউন হল অডিটোরিয়ামে শেখ রাসেলের জন্মদিন ও শেখ রাসেল দিবস উপলক্ষ্যে আয়োজিত পুরস্কার বিতরণ ও আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ মন্তব্য করেন।

            শেখ রাসেল জাতীয় শিশু-কিশোর পরিষদ রংপুর বিভাগীয় কমিটি আয়োজিত অনুষ্ঠানে এ সময় অন্যান্যের মধ্যে পরিষদের মহাসচিব কেএম শহিদ উল্যা এবং সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ আলাউদ্দিন সাজুসহ কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

            পরে শেখ রাসেলকে নিয়ে মাসব্যাপী চিত্রাঙ্কনসহ বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় অংশ নেয়া বিজয়ী শিশু-কিশোরদের হাতে পুরস্কার তুলে দেন প্রতিমন্ত্রী।

#

জাহাঙ্গীর/পাশা/রাহাত/এনায়েত/রফিকুল/জয়নুল/২০২১/১৯৫০ঘণ্টা

তথ্যবিবরণী                                                                                                                   নম্বর : ৫৩৪৮

এবছরই দেশের সকলের জন্য বিদ্যুৎ, ২০৪১ সালে ৪০%

নবায়নযোগ্য জ্বালানি-গ্লাসগোতে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী

ঢাকা, ২৫ কার্তিক (১০ নভেম্বর) :

          গ্লাসগোতে বিশ্ব জলবায়ু সম্মেলনে যোগদানরত আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহ্‌মুদ বলেছেন, এ বছরের শেষ নাগাদ দেশের শতভাগ মানুষ বিদ্যুৎ সুবিধার আওতায় আসছে। সেইসাথে ২০৪১ সালের মধ্যে দেশে ৪০% নবায়নযোগ্য জ্বালানির ব্যবহার নিশ্চিত করা সম্ভব বলেও আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

          স্কটল্যান্ডের স্থানীয় সময় মঙ্গলবার সন্ধ্যায় কপ-২৬ এর বাংলাদেশ প্যাভিলিয়নে বিদ্যুৎ বিভাগ আয়োজিত ‘নবায়নযোগ্য জ্বালানি খাতে বিদেশি বিনিয়োগ’শীর্ষক সাইড ইভেন্টে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় মন্ত্রী এ আশা প্রকাশ করেন। বিদ্যুৎ বিভাগের সচিব মোঃ হাবিবুর রহমানের সভাপতিত্বে সভায় জাতীয় সংসদের ক্লাইমেট চেঞ্জ সংক্রান্ত সংসদীয় কমিটির সদস্য তানভীর শাকিল জয় এবং নবায়নযোগ্য জ্বালানি কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলাউদ্দিন বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন।

          সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দূরদর্শী নেতৃত্বে বিদ্যুৎ ও জ্বালানি খাতে বিস্ময়কর উন্নয়ন সাধিত হয়েছে। ২০০৯ সালে দেশে সাড়ে ৩ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ নিয়ে সরকার দেশ পরিচালনা শুরু করে গত ১২ বছরে তা বেড়ে বর্তমানে ২৪ হাজার মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন করেছে। এর ফলে দেশের উন্নয়ন, মানুষের মাথাপিছু আয় ও গড় আয়ু বেড়েছে, জীবনমানের উন্নতি হয়েছে। প্রত্যন্ত এলাকায় বিদ্যুৎ সুবিধা পাওয়ায় মানুষের আয়ও বেড়েছে।’

          শুধু তাই নয়, বিদ্যুৎ উৎপাদন বৃদ্ধির কারণে বাংলাদেশ মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত হয়েছে, এখন মাথাপিছু জিডিপি ২ হাজার ২৫০ ডলার উল্লেখ করে তিনি বলেন, ‘করোনাকালে জিডিপিসহ দেশের মানুষের জীবনরক্ষা ও  জীবিকার চাকা সচল রাখতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ প্রণোদনা প্যাকেজই মূলত: অর্থনীতির সকল সূচকে পাশ্ববর্তী দেশ ভারত ও পাকিস্তানকে পেছনে ফেলে বাংলাদেশকে এগিয়ে নিয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাাসিনার সরকারের ধারাবাহিকতা ও রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা অব্যাহত থাকায় এই অর্জন সম্ভব হয়েছে।’

          অনুষ্ঠানে উপস্থিত বাংলাদেশ উন্নয়ন সহযোগী সংস্থাপ্রতিনিধিদের উদ্দেশ্যে তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেন, দেশে নবায়নযোগ্য জ্বালানি তথা সৌরবিদ্যুতের ব্যবহার বাড়াতে এবং ২০৪১ সালের মধ্যে ৪০% নবায়নযোগ্য জ্বালানি ব্যবহারের লক্ষ্য পূরণে উন্নয়ন সহযোগীরা আধুনিক প্রযুক্তি ও অর্থ সহায়তা নিয়ে এগিয়ে এলে বাংলাদেশ উপকৃত হবে।

          এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, দেশের সিটি কর্পোরেশনসমূহের ময়লা আবর্জনাকে নবায়নযোগ্য জ্বালানিতে পরিণত করা এবং স্থানীয় মানুষকে সম্পৃক্ত করে সৌরবিদ্যুতের ব্যবহার বাড়ানো গেলে একদিকে পরিবেশ রক্ষা পাবে অন্যদিকে অর্থনৈতিকভাবে দেশ লাভবান হবে। পাশাপাশি সবুজ প্রযুক্তি, জলবায়ু অভিযোজনে প্রযুক্তিগত এবং আর্থিক সহায়তা বিকল্প নেই। বিশ্বের উন্নত দেশগুলোর অব্যাহত কার্বন নিঃসরণের কারণে বাংলাদেশ জলবায়ু পরিবর্তনের নিষ্পাপ শিকার। অথচ এজন্য আমরা মোটেও দায়ী নই, দায়ী উন্নত বিশ^। অথচ তারা এজন্য কোন ক্ষতিপূরণ বা প্রযুক্তিগত  সহয়তাও দিচ্ছে না, বলেন ড. হাছান।

          অনুষ্ঠানে বিদ্যুৎ সেলের মহাপরিচালক মোহাম্মদ হোসেন মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন এবং পিকেএসএফর উপব্যবস্থাপনা পরিচালক ড. ফজলে রাব্বি সাদিক, ইডকলের জ্বালানি বিষয়ক প্রকৌশলী এনামুল কবীর পাভেলসহ উন্নয়ন সহযোগী সংস্থার প্রতিনিধিবৃন্দ বক্তব্য রাখেন। জলবায়ু সম্মেলন শেষে ১৭ নভেম্বর তথ্যমন্ত্রীর দেশে ফেরার কথা।

#

আকরাম/পাশা/রাহাত/রফিকুল/জয়নুল/২০২১/১৮৩০ঘণ্টা

তথ্যবিবরণী                                                                                                          নম্বর: ৫৩৪৭

 

কোভিড-১৯ সংক্রান্ত সর্বশেষ প্রতিবেদন

 

ঢাকা, ২৫ কার্তিক (১০ নভেম্বর) :

 

            স্বাস্থ্য অধিদপ্তর এবং রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান (আইইডিসিআর)-এর তথ্যানুযায়ী গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৭ হাজার ৯৮৭ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ২৩৫ জনের শরীরে করোনা সংক্রমণ পাওয়া গেছে। এ নিয়ে বাংলাদেশে এখন পর্যন্ত কোভিড-১৯ আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ১৫ লাখ ৭১ হাজার ৬৬৯ জন। 

 

          গত ২৪ ঘণ্টায় ২ জন-সহ এ পর্যন্ত ২৭ হাজার ৯০৬ জন এ রোগে মৃত্যুবরণ করেছেন।

 

          করোনা ভাইরাস আক্রান্তদের মধ্যে এখন পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ১৫ লাখ ৩৫ হাজার ৬৬১ জন।

 

#

 

নাসিমা/পাশা/রাহাত/রফিকুল/রেজাউল/২০২১/১৮১০ ঘণ্টা

তথ্যবিবরণী                                                                                                                 নম্বর : ৫৩৪৬

ইন্দোনেশিয়া সফররত শিল্পমন্ত্রীর সাথে সেদেশের শিল্পমন্ত্রীর দ্বিপাক্ষিক বৈঠক

ঢাকা, ২৫ কার্তিক (১০ নভেম্বর) :

          ইন্দোনেশিয়া সফররত শিল্পমন্ত্রী নূরুল মজিদ মাহমুদ হুমায়ূনের সাথে ইন্দোনেশিয়ার শিল্পমন্ত্রী Agus Gumiwang Kartasasmita-এর দ্বিপাক্ষিক বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়েছে। জাতিসংঘের শিল্প উন্নয়ন সংস্থা (UNIDO)-এর সহযোগিতায় ইন্দোনেশিয়ার রাজধানী জাকার্তায় শিল্প উন্নয়নের ওপর ২য় আঞ্চলিক সম্মেলন (The 2nd Regional Conference on Industrial Development) শুরুর প্রাক্কালে আজ এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

          বৈঠকে শীঘ্রই অগ্রাধিকারমূলক বাণিজ্য চুক্তি স্বাক্ষরের বিষয়ে উভয় পক্ষ একমত পোষণ করে। এছাড়া ব্লু ইকোনমি, কারিগরি দক্ষতা এবং হালাল শিল্প বিষয়ে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরেও উভয় পক্ষ সম্মত হয়।

          এ লক্ষ্যে কিছু দিনের মধ্যেই ইন্দোনেশিয়ার শিল্পমন্ত্রী তাদের বাণিজ্যমন্ত্রী এবং ব্যবসায়িক প্রতিনিধিদের নিয়ে বাংলাদেশ সফর করবেন।

           বৈঠকে ইন্দোনেশিয়ায় নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত এয়ার ভাইস মার্শাল মোহাম্মদ মোস্তাফিজুর রহমান, শিল্পমন্ত্রীর একান্ত সচিব মোঃ আব্দুল ওয়াহেদ এবং শিল্প মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব মোঃ সলিম উল্লাহ উপস্থিত ছিলেন।

#

মাহমুদুল/পাশা/রাহাত/রফিকুল/জয়নুল/২০২১/১৮২৫ঘণ্টা

তথ্যবিবরণী                                                                                                 নম্বর : ৫৩৪৫

তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়েবার্ষিক কর্মসম্পাদন চুক্তি বাস্তবায়ন পর্যালোচনা সভা অনুষ্ঠিত

ঢাকা, ২৫ কার্তিক ((১০ নভেম্বর):  

          তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয় এবং এর অধীন দপ্তর ও সংস্থাসমূহের ২০২১-২২ অর্থবছরের বার্ষিক কর্মসম্পাদন চুক্তি (আপা)’র অগ্রগতি পর্যালোচনা সভা আজ সচিবালয়ে অনুষ্ঠিত হয়। তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ মকবুল হোসেন সভায় সভাপতিত্ব করেন।

          সভায় চলতি অর্থবছরে বিভিন্ন দপ্তরের সংশ্লিষ্ট কার্যক্রমের অগ্রগতি নিয়ে আলোচনা হয়। দপ্তর প্রধানগণ তাদের কার্যক্রমের অগ্রগতি সভায় তুলে ধরেন। এসময় তথ্য মন্ত্রণালয়ের সচিব সম্পূর্ণ স্বচ্ছতা ও জবাবদিহিতার সাথে যথাসময়ে বার্ষিক কর্মসম্পাদন চুক্তি বাস্তবায়নে সংশ্লিষ্টদের আরো তৎপর হওয়ার নির্দেশনা প্রদান করেন।  

          প্রধান তথ্য অফিসার মো: শাহেনুর মিয়া, বাংলাদেশ টেলিভিশনের মহাপরিচালক সোহরাব হোসেন, বাংলাদেশ বেতারের মহাপরিচালক আহম্মদ কামরুজ্জামান, গণযোগাযোগ অধিদপ্তরের মহাপরিচালক বিধান চন্দ্র কর্মকার, বাংলাদেশ চলচ্চিত্র ও টেলিভিশন ইনস্টিটিউট এর প্রধান নির্বাহী  মো: আবুল কালাম আজাদসহ মন্ত্রণালয় এবং অধীনস্থ দপ্তরের উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা সভায়  উপস্থিত ছিলেন।

#

পরীক্ষিৎ/জসীম/রেজ্জাকুল/মাসুম/২০২১/১৬০০ ঘণ্টা

 

 তথ্যবিবরণী                                                                                                                    নম্বর:  ৫৩৪৪

আগামীকাল থেকে ঢাকায় শুরু হচ্ছে প্রযুক্তি খাতের বিশ্ব সম্মেলন ডব্লিউসিআইটি ২০২১

ঢাকা, ২৫ কার্তিক (১০ নভেম্বর):   

          ‘আইসিটি দ্য গ্রেট ইক্যুলাইজার’ প্রতিপাদ্য নিয়ে আগামীকাল থেকে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি খাতের বিশ্ব সম্মেলন ‘ওয়ার্ল্ড কংগ্রেস অন ইনফরমেশন টেকনোলজি’র ২৫তম আসর। চারদিনব্যাপী এ সম্মেলনে বিশ্বের যে কোন প্রান্ত থেকে অনলাইনেও যুক্ত হওয়া যাবে। ‘ডব্লিউসিআইটি ২০২১’ সম্মেলনের সমান্তরালে একই সময়ে অনুষ্ঠিত হবে এশিয়া এবং ওশেনিয়া অঞ্চলের আন্তর্জাতিক সম্মেলন অ্যাসোসিও ‘ডিজিটাল সামিট ২০২১’। সম্পূর্ণ সম্মেলনটি সশরীরে এবং ভার্চুয়ালি উপভোগ করা যাবে।

          দ্য ওয়ার্ল্ড ইনফরমেশন টেকনোলজি অ্যান্ড সার্ভিসেস অ্যালায়েন্স (উইটসা)-এর উদ্যোগে তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ, বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল (বিসিসি) এবং বাংলাদেশ কম্পিউটার সমিতি যৌথভাবে এ সম্মেলন আয়োজন করতে যাচ্ছে। এ আয়োজনের সহযোগী হিসেবে রয়েছে বেসিস, বাক্কো, ই-ক্যাব এবং আইএসপিএবি। 

          তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহম্মদ পলক আজ রাজধানীর আগারগাঁওয়ে আইসিটি টাওয়ারে বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল মিলনায়তনে এ উপলক্ষ্যে আয়োজিত এক ‘সংবাদ সম্মেলনে’ এসব তথ্য জানান। 

          প্রতিমন্ত্রী আরো জানান চারদিনব্যাপী এ সম্মেলনে থাকছে সেমিনার, মিনিস্টেরিয়াল কনফারেন্স, বিটুবি সেশন। অনলাইনে নিবন্ধিত হয়ে এই সেমিনারগুলোতে অংশ নেওয়া যাবে। রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদ আগামীকাল প্রধান অতিথি হিসেবে ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে এ বিশ্ব সম্মেলন উদ্বোধন করবেন। মিনিস্টেরিয়াল কনফারেন্সে কি-নোট স্পিকার হিসেবে প্রধানমন্ত্রীর আইসিটি বিষয়ক উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয় ভার্চুয়ালি যুক্ত হবেন।

          পলক বলেন, এবার গ্রামের প্রত্যেকটি স্কুল ও সরকারি অফিসে ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেটে সংযুক্ত করা হবে। দুর্গম দ্বীপে সব ধরনের প্রযুক্তি সেবা পৌঁছে দেয়া হবে। তিনি বলেন, বিগত প্রায় ১৩ বছরে ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার লক্ষ্যে বাংলাদেশের যে অর্জন তা এই সম্মেলনের মাধ্যমে বহির্বিশ্বে ‘ডিজিটাল বাংলাদেশ’ হিসেবে ব্র্যান্ডিং করার সুযোগ তৈরি হয়েছে।

          উল্লেখ্য, সম্মেলনটির বিভিন্ন অংশ উপভোগ করার জন্য অ্যাপ উন্মুক্ত করা হয়েছে। গুগল প্লে স্টোর ও আইফোনের অ্যাপ স্টোর থেকে ‘WCIT 2021’ নামের অ্যাপটি বিনামূল্যে ডাউনলোড করা যাবে। তবে ব্যবহারের পূ্র্বে রেজিস্ট্রেশন করে নিতে হবে। এছাড়াও www.wcit2021.com.bd ওয়েবসাইট ভিজিট করে ভার্চুয়ালি সম্মেলন ও প্রদর্শনী ঘুরে আসা যাবে। সশরীরে এবং অনলাইন রেজিস্ট্রেশন-সহ ডব্লিউসিআইটি সম্মেলনের যাবতীয় তথ্য www.wcit2021.org.bd ওয়েবসাইটটিতে পাওয়া যাবে।

          সংবাদ সম্মেলনে আইসিটি বিভাগের সিনিয়র সচিব এন এম জিয়াউল আলমের সভাপতিত্বে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের নির্বাহী পরিচালক ড. মোঃ আব্দুল মান্নান, বিসিএসের সভাপতি মো: শাহিদ-উল-মুনীর। এছাড়া ওয়ার্ল্ড ইনফরমেশন টেকনোলজি অ্যান্ড সার্ভিসেস অ্যালায়েন্স এর সেক্রেটারি জেনারেল  মি: জেমস এইচ পয়সান্ট অনলাইনে যুক্ত হয়ে বক্তব্য রাখেন।

#

শহিদুল/পরীক্ষিৎ/শাম্মী/রেজ্জাকুল/কুতুব/২০২১/১৬৩৫ ঘণ্টা

 

তথ্যবিবরণী                                                                                                                    নম্বর:  ৫৩৪৩

 

বাংলাদেশে অ্যাক্রিডিটেশন ল্যাব উন্নয়নে কাজ করবে নেদারল্যান্ড

ঢাকা, ২৫ কার্তিক (১০ নভেম্বর):   

কৃষিপণ্যের রপ্তানি বৃদ্ধি করতে বাংলাদেশে অ্যাক্রিডিটেশন ল্যাব উন্নয়ন এবং ফাইটোস্যানিটারি সার্টিফিকেট প্রদানে নেদারল্যান্ডের কৃষি মন্ত্রণালয় সহযোগিতা প্রদান করবে। এক্ষেত্রে তারা বাংলাদেশের কৃষি মন্ত্রণালয়ের সমন্মিতভাবে সাথে কাজ করবে। এর ফলে নেদারল্যান্ডে কৃষিপণ্য রপ্তানির বিরাট সম্ভাবনা তৈরি হবে।

গতকাল নেদারল্যান্ডের স্থানীয় সময় রাতে কৃষিমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ড. মো: আব্দুর রাজ্জাকের সাথে নেদারল্যান্ডের কৃষি মন্ত্রণালয় ও কৃষি-খাদ্য বিষয়ক সরকারি কর্মকর্তা-বেসরকারি উদ্যোক্তাদের বৈঠকে এ আলোচনা হয়। নেদারল্যান্ডে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূতের বাসভবনে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়।

বৈঠকে কৃষিমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশে কৃষি উৎপাদনে অভাবনীয় সাফল্য এসেছে। আমাদের অনেক উদ্বৃত্ত ফসল রয়েছে। কিন্তু রপ্তানি ও প্রক্রিয়াজাতকরণে পিছিয়ে আছে বাংলাদেশ। আমাদের অর্থের অভাব নেই, প্রয়োজন কারিগরি ও জ্ঞানবিনিময়ে সহযোগিতা। এক্ষেত্রে আমরা নেদারল্যান্ডের সহযোগিতা কামনা করি।

নেদারল্যান্ডে বাংলাদেশের কৃষিপণ্য রপ্তানির বাধা দূর করতে নেদারল্যান্ডের প্রতিনিধিদলের সকলে একযোগে কাজ করবেন বলে বৈঠকে জানান। রপ্তানির ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র বা ডকুমেন্টেশন তৈরিতেও তারা সহযোগিতা প্রদান করার আশ্বাস প্রদান করেন। এছাড়া, বীজ উৎপাদন ও পরিবহণে এবং কৃষি প্রক্রিয়াজাতে দুদেশের ব্যবসায়ীদের মধ্যে সম্পর্ক জোরদার ও সহযোগিতা বৃদ্ধি করবে বলেও জানানো হয়।

বৈঠকে নেদারল্যান্ডে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত এম রিয়াজ হামিদুল্লাহ, ঢাকায় নিযুক্ত নেদারল্যান্ডের রাষ্ট্রদূত অ্যান ভ্যান লিউভেন, নেদারল্যান্ড ফুড পার্টনারশিপের সিইও মির্টেলে ড্যান্স, টপ সেক্টর এগ্রি অ্যান্ড ফুডের ডিরেক্টর উইলিমিয়েন ভি. অ্যাসল্ট, গ্রুয়েন্টে ফ্রুট হিউসের সিইও জানাইন লুটেন ও ইনগে রিবেন্স উপস্থিত ছিলেন। 

বাংলাদেশ প্রতিনিধিদলে কৃষি বিপণন অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মোহাম্মদ ইউসুফ, প্রাণ আরএফএল গ্রুপের চেয়ারম্যান ও সিইও আহসান খান চৌধুরী, এসিআই এগ্রো লিংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও সিইও এফএইচ আনসারী, স্কয়ার ফুড অ্যান্ড বেভারেজের চিফ অপারেটিং অফিসার পারভেজ সাইফুল ইসলাম, জেমকন গ্রুপের ডিরেক্টর কাজী ইনাম আহমেদ, মেঘনা গ্রুপ অব ইন্ডাস্ট্রিজের চেয়ারম্যান মো: মোস্তফা কামাল, এবং বাংলাদেশ ফ্রুটস, ভেজিটেবল অ্যান্ড এলাইড প্রোডাক্ট এক্সপোর্টার্স এসোসিয়েশনের প্রেসিডেন্ট জাহাঙ্গীর হোসেন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

#

কামরুল/পরীক্ষিৎ/শাম্মী/জসীম/কুতুব/২০২১/১৬৪৫ ঘণ্টা

 

 

তথ্যবিবরণী                                              &

2021-11-10-16-00-c9ba4462914b0a7a72f6f8d200e9d96e.doc 2021-11-10-16-00-c9ba4462914b0a7a72f6f8d200e9d96e.doc

Share with :

Facebook Facebook