তথ্য অধিদফতর (পিআইডি) গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ২৬ নভেম্বর ২০১৯

তথ্যবিবরণী ২৬/১১/২০১৯

তথ্যবিবরণী                                                                                                                নম্বর : ৪৪৮১

 

বাংলাদেশ ও তুরস্ক নিরাপত্তা বিষয়ে সহযোগিতায় আগ্রহী

 

আঙ্কারা (তুরস্ক), ২৬ নভেম্বর :    

 

বাংলাদেশ ও তুরস্ক পারস্পরিক নিরাপত্তা সহযোগিতা, মাদক ও সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে যৌথভাবে কাজ করার ব্যাপারে সম্মত হয়েছে। বাংলাদেশ-তুরস্ক স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পর্যায়ের দ্বি-পাক্ষিক বৈঠকে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান  তুরস্কের গভর্নর Vasip Sahin-কে বাংলাদেশে আশ্রিত মিয়ানমারের নাগরিকদের ব্যাপারে বাংলাদেশ সরকারের কার্যক্রম সম্পর্কে অবহিত করেন এবং রোহিঙ্গাদের মিয়ানমারে  দ্রুত প্রত্যাবর্তনে তুরস্ক সরকারের সার্বিক সহযোগিতার বিষয়ে অনুরোধ করেন।

 

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আজ তুরস্কে আঙ্কারার গভর্নর Vasip Sahin  এর  সঙ্গে তার গভর্নর ভবনে সাক্ষাৎকালে এসব বিষয়ে অনুরোধ জানান।

 

Vasip Sahin  দু'দেশের বিদ্যমান দ্বি-পাক্ষিক সম্পর্কের বিষয়ে সন্তোষ প্রকাশ করেন এবং এ সম্পর্ক আরো জোরদার করার ব্যাপারে তার আগ্রহের বিষয়টি আসাদুজ্জামান খানকে জানান এবং সার্বিক সহযোগিতার আশ্বাস দেন।

 

বৈঠকের পূর্বে আসাদুজ্জামান খান তুরস্কের রেড ক্রিসেন্টের প্রধান অফিস পরিদর্শন করেন এবং প্রতিষ্ঠানটির চেয়ারম্যান Dr. Kerem Kinik এবং মহাপরিচালক Dr. Ibrahim Altan এর সঙ্গে সেখানকার কার্যক্রম সম্পর্কে মতবিনিময় করেন। বাংলাদেশে আশ্রিত রোহিঙ্গাদের বিভিন্ন মানবিক সহযোগিতা প্রদানের জন্য মন্ত্রী তাদের ধন্যবাদ জানান।

 

বৈঠক শেষে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী তুরস্কের জাতির জনক মোস্তফা কামাল আতাতুর্ক এর সমাধিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন।

 

#

 

 অপু/ইসরাত/রফিকুল/সেলিম/২০১৯/২২০০ ঘণ্টা

তথ্যবিবরণী                                                                                        নম্বর : ৪৪৮০
 
আধুনিক যন্ত্রপাতি আর সমবায় পদ্ধতির চাষাবাদে কৃষকের লাভ বাড়বে
                                                    --- স্থানীয় সরকার মন্ত্রী
শেরপুর (বগুড়া), ১১ অগ্রহায়ণ (২৬ নভেম্বর) :
স্থানীয় সরকার মন্ত্রী মোঃ তাজুল ইসলাম বলেছেন, বর্তমান পদ্ধতির চাষাবাদে প্রতি একর জমিতে কৃষকের গড়ে চার হাজার টাকা লাভ আসে। কিন্তু আধুনিক যন্ত্রপাতি ব্যবহার করে জমির আইল উঠিয়ে সমবায় ভিত্তিতে চাষাবাদ করলে এই লাভের অঙ্ক অনেক বেড়ে যাবে।
আজ বগুড়া জেলার শেরপুর উপজেলায় বগুড়া পল্লী উন্নয়ন একাডেমি (আরডিএ) এর গবেষণাধীন কৃষি জমির আইল উঠিয়ে দিয়ে সমবায়ভিত্তিক যান্ত্রিক পদ্ধতিতে চাষাবাদের মাধ্যমে ফসলের উৎপাদন বৃদ্ধি শীর্ষক প্রায়োগিক গবেষণার ধান কর্তনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। 
আরডিএ, বগুড়া জমির আইল উঠিয়ে সমবায় ভিত্তিতে যান্ত্রিক চাষাবাদের এই পাইলট প্রকল্পের কাজ শুরু করে শেরপুর উপজেলার চকপাথালিয়া এলাকার ৭৫৮ শতক জমিতে। ৪২ জন কৃষকের ৬২টি কৃষি জমির প্লটে আইল উঠিয়ে সেখানে ধান চাষ শুরু হয়। সমবায় পদ্ধতির চাষাবাদ ব্যবস্থার ফলাফল জানতে এই পাইলট প্রকল্পের কাজ শুরু হয়েছিলো। এই পদ্ধতিতে ফলন ভালো হওয়ায় কৃষকরা চাইলে এ ব্যাপারে কৃষি প্রণোদনার সুযোগ রাখা হবে বলে জানান মন্ত্রী।
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন সমবায় প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টাচার্য্য, বগুড়া-৫ আসনের সাংসদ মুক্তিযোদ্ধা হাবিবর রহমান। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় বিভাগের সচিব মোঃ রেজাউল আহসান। আরো উপস্থিত ছিলেন বগুড়ার পল্লী উন্নয়ন একাডেমির মহাপরিচালক মোঃ আমিনুল ইসলাম।
#
হাসান/ইসরাত/রফিকুল/জয়নুল/২০১৯/২১৩৫ঘণ্টা
 
তথ্যবিবরণী                                                                                        নম্বর : ৪৪৭৯
 
দেশের তরুণ প্রজন্ম হয়ে উঠুক বঙ্গবন্ধুর মতোই ক্রীড়াপ্রেমিক 
                                    --- যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী
 
ঢাকা, ১১ অগ্রহায়ণ (২৬ নভেম্বর) :
  জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান নিজে ফুটবল খেলতেন। খেলাধুলার মানোন্নয়নে তাঁর আন্তরিকতার বিষয়টি সর্বজনবিদিত। মুজিববর্ষের আয়োজন সার্থক করে তুলতে স্থানীয়, জাতীয় ও আন্তর্জাতিক পর্যায়ের বয়সভিত্তিক বিভিন্ন ক্রীড়া প্রতিযোগিতার মাধ্যমে বঙ্গবন্ধুর মতোই ক্রীড়াপ্রেমিক হয়ে উঠবে দেশের তরুণ প্রজন্ম।   
আজ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদ্যাপন জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির কার্যালয় আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে অনুষ্ঠিত ‘ক্রীড়া ও আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্ট আয়োজন উপকমিটি’র ৫ম সভায় যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মোঃ জাহিদ আহসান রাসেল সভাপতির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। 
সভায় জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির প্রধান সমন্বয়ক ড. কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে পরিকল্পনা অনুযায়ী প্রতিযোগিতাসমূহ সুষ্ঠুভাবে আয়োজনের ওপর গুরুত্বারোপ করেন। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে বঙ্গবন্ধুকে উৎসর্গীকৃত সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের মতো ফুটবল-ক্রিকেট-সহ বিভিন্ন খেলার আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতার আয়োজন দেশের দর্শকদের কাছে নানা দেশের ক্রীড়ামোদীদের যেমন পরিচয় ঘটাবে, তেমনি বিশে^র ক্রীড়াপ্রেমীদের কাছে বাংলাদেশকে নিয়ে যাবে এক অনন্য উচ্চতায়। 
মুজিববর্ষে অ্যাডভেঞ্চারপ্রিয় তরুণ প্রজন্মকে আকৃষ্ট করতে ৫টি দুর্গম পর্বত আরোহণের প্রতিযোগিতাও থাকছে এই আয়োজনে। ঐতিহ্যবাহী খেলা কাবাডি, নৌকাবাইচের নানা আয়োজন যেমন থাকছে, জনপ্রিয় খেলা ফুটবল, ক্রিকেট-সহ বিশ^ব্যাপী পরিচিত জিমন্যাস্টিকস, গ্রান্ডমাস্টার দাবা প্রতিযোগিতারও আয়োজন করা হবে বলে জানান যুব ও ক্রীড়া মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ আখতার হোসেন।
#
নাসরীন/নাইচ/সঞ্জীব/জয়নুল/২০১৯/২০৩০ঘণ্টা
তথ্যবিবরণী                                                                                        নম্বর : ৪৪৭৮
 
সুষ্ঠুভাবে হজ পালন করতে মধ্যস্বত্বভোগী ও দালাল পরিহার করুন
                                                          --- ধর্ম প্রতিমন্ত্রী
 
চট্টগ্রাম, ১১ অগ্রহায়ণ (২৬ নভেম্বর) : 
ধর্ম প্রতিমন্ত্রী আলহাজ্ব এডভোকেট শেখ মোঃ আব্দুল্লাহ বলেছেন, সুষ্ঠুভাবে হজ পালন করতে হলে হজযাত্রীদেরকে আরো বেশি সচেতন হয়ে হজে গমন করতে হবে। সরাসরি সরকারি অফিস কিংবা হজ এজেন্সির সাথে যোগাযোগ করে হজের কার্যক্রম সম্পন্ন করতে হবে। যেকোনো প্রকার মধ্যস্বত্বভোগী ও দালাল পরিহার করতে হবে।
প্রতিমন্ত্রী আজ চট্টগ্রাম ইমাম প্রশিক্ষণ একাডেমিতে ইসলামিক ফাউন্ডেশন চট্টগ্রাম বিভাগের কর্মকর্তা কর্মচারী ও আলেম ওলামাদের সাথে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।
প্রতিমন্ত্রী বলেন, চট্টগ্রাম পাহাড়তলীর পুরাতন হাজি ক্যাম্পের আধুনিকায়ন ও সংস্কারের পরিকল্পনা নেয়া হয়েছে। এখানে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণের কার্যক্রম শুরু হয়েছে। প্রতিমন্ত্রী জানান, চট্টগ্রামের ঐতিহাসিক আন্দরকিল্লা জামে মসজিদের উন্নয়নে সরকার কার্যক্রম পরিকল্পনা করেছে।
ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব এ বি এম আমিন উল্লাহ নূরী-সহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ সভায় উপস্থিত ছিলেন। অনুষ্ঠান শেষে প্রতিমন্ত্রী পাহাড়তলী হাজি ক্যাম্প সরেজমিন পরিদর্শন করেন।
#
আনোয়ার/ফারহানা/রফিকুল/জয়নুল/২০১৯/২০১০ঘণ্টা

তথ্যবিবরণী                                                                                                      নম্বর : ৪৪৭৭

 

নারী গৃহকর্মী হোসনা আক্তারকে বাংলাদেশে প্রেরণের বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন

 

ঢাকা, 11 অগ্রহায়ণ (২6 নভেম্বর) :    

 

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনায় জেদ্দাস্থ বাংলাদেশ কনস্যুলেটের উদ্যোগে সৌদি আরবে কর্মরত নারী গৃহকর্মী হোসনা আক্তারকে উদ্ধারের পর পুলিশের নজরদারিতে এবং সেইফহোমে রাখা হয়েছে। বর্তমানে তিনি নিরাপদে আছেন।

 

তাকে বাংলাদেশে প্রেরণের বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। এ বিষয়ে জেদ্দা কনস্যুলেটের ফলোআপ অব্যাহত আছে।

 

উল্লেখ্য, জেদ্দা কনস্যুলেট হোসনা আক্তারকে উদ্ধারের জন্য নাজরান পুলিশকে অবহিত করে। হোসনা আক্তার সৌদি রিক্রুটিং অফিস ‘রুয়াদ নাজরানের (লাইসেন্স নং- ৩৯১৮৬১৮) মাধ্যমে প্রায় তিন মাস আগে সৌদি আরব গমন করেন।

 

#

 

 তৌহিদুল/ফারহানা/সঞ্জীব/সেলিম/২০১৯/১৯০০ ঘণ্টা

 

তথ্যবিবরণী                                                                                        নম্বর : ৪৪৭৬
 
জনগণকে উৎসাহিত করতে ন্যায়-নিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশন করতে হবে
                                                                     --- বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী
 
ঢাকা, ১১ অগ্রহায়ণ (২৬ নভেম্বর) :
বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বলেছেন, জনগণকে উৎসাহিত করতে  ন্যায়-নিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশন করা উচিত। সৎ ও নির্ভিক সাংবাদিকতা জনবান্ধব হয়। জনগণকে সচেতন করে দায়িত্বশীল করাও গণমাধ্যম পেশাজীবীদের অন্যতম দায়িত্ব।
  প্রতিমন্ত্রী আজ ঢাকা রিপোটার্স ইউনিটি (ডিআরইউ) এর নবনির্মিত ভবন উদ্বোধনকালে এসব কথা বলেন। ঢাকা রিপোটার্স ইউনিটি (ডিআরইউ) এর সাধারণ সম্পাদক কবির আহমেদ খান সভায় সভাপতিত্ব করেন। 
প্রতিমন্ত্রী বলেন, দলগত প্রচেষ্টায় পেশাগত দায়িত্ব পালনের জন্য বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের সাফল্য দৃশ্যমান। দেশের স্বার্থে, জনগণের উন্নয়নে, মানুষের কল্যাণে সাংবাদিকদেরও ঐক্যবদ্ধ থেকে পেশাগত দায়িত্ব পালন করতে হবে। দেশ ও জনগণকে সংগঠিত করে নির্ধারিত সময়ে পূর্বেই বাংলাদেশ উন্নত দেশে পরিণত হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।  
তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহ্মেদ পলক বলেছেন, বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী সারা দেশ আলোকিত করার পাশাপাশি সাংবাদিকদের আলোকিত করলেন। তিনি এ সময় ডিআরইউ তে ডিজিটাল লাইব্রেরি বা কর্নার স্থাপন করার প্রতিশ্রুতি দেন। 
#
আসলাম/ফারহানা/রফিকুল/জয়নুল/২০১৯/১৯২০ঘণ্টা
 
তথ্যবিবরণী                                                                                        নম্বর : ৪৪৭৫
 
বিজেএমসিকে একশত কোটি টাকা বরাদ্দ
 
ঢাকা, ১১ অগ্রহায়ণ (২৬ নভেম্বর) :
আজ বাংলাদেশ পাটকল করপোরেশন (বিজেএমসি)-এর নিয়ন্ত্রণাধীন পাটকলসমূহের শ্রমিক-কর্মচারীদের বকেয়া মজুরি ও বেতন-ভাতা পরিশোধের জন্য একশত কোটি টাকা বরাদ্দ দিয়েছে অর্থ মন্ত্রণালয়।
বিজেএমসি’র নিয়ন্ত্রণাধীন মিলসমূহের শ্রমিক-কর্মচারীদের আগস্ট হতে নভেম্বর, ১৯ পর্যন্ত বকেয়া মজুরি ও বেতন-ভাতা পরিশোধের জন্য ২০১৯-২০ অর্থবছরের বাজেটে অর্থ বিভাগের ‘অপ্রত্যাশিত ব্যয়’ খাত হতে বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন বিজেএমসি’র অনুকূলে ‘পরিচালনা ঋণ’ খাতে এ টাকা বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। তবে অর্থ বিভাগ থেকে বরাদ্দ এই টাকা ব্যবহারের ক্ষেত্রে বিজেএমসিকে বেশ কিছু শর্ত পরিপালন করতে হবে। 
শর্তগুলো হলো : ছাড়কৃত একশত কোটি টাকা চলতি অর্থবছরে (২০১৯-২০) বিজেএমসি’র মিলগুলোর জন্য বর্ণিত খাত ছাড়া অন্য কোনো খাতে ব্যয় করা যাবে না। এ ছাড়া ছাড়কৃত অর্থ সুনির্দিষ্ট ব্যাংকের অ্যাকাউন্ট পেয়ি চেকের মাধ্যমে পরিশোধ করতে হবে। এ অর্থ ব্যয়ের সাত দিনের মধ্যে মিলভিত্তিক কর্মচারী ও শ্রমিকদের তালিকা-সহ বিস্তারিত ব্যয় বিবরণী অর্থ বিভাগে প্রেরণ করতে হবে। এ অর্থ ব্যয়ের ক্ষেত্রে সরকারের বিদ্যমান বিধি-বিধান অনুসরণ করতে হবে। বিধি বহির্ভূতভাবে কোনো অর্থ পরিশোধ করা হলে সংশি¬ষ্ট কর্তৃপক্ষ দায়ী থাকবেন।
আর্থিক কর্মপরিকল্পনা বাস্তবায়নের লক্ষ্যে বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়, বিজেএমসি ও অর্থ বিভাগের মধ্যে স্বাক্ষরিত সমঝোতা স্মারকে বর্ণিত শর্তাদি যথাযথভাবে প্রতিপালন করতে হবে। ছাড় করা অর্থ বিজেএমসির অনুকূলে ‘সরকারি ঋণ’ হিসেবে গণ্য হবে, যা আগামী ২০ বছরে (পাঁচ বছরের গ্রেস পিরিয়ড-সহ) পাঁচ শতাংশ সুদে ষান্মাসিক কিস্তিতে পরিশোধ করতে হবে। এ বিষয়ে অর্থ বিভাগের সাথে বিজেএমসির একটি চুক্তি স্বাক্ষরিত হবে।
#
সৈকত/ফারহানা/সঞ্জীব/জয়নুল/২০১৯/১৯১০ঘণ্টা


তথ্যবিবরণী                                                                                                      নম্বর : ৪৪৭৪

 

কারিগরি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে  নতুন ট্রেড কোর্স চালু করা হবে

                                                         -- শিক্ষা উপমন্ত্রী

 

ঢাকা, 11 অগ্রহায়ণ (২6 নভেম্বর) :    

 

শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী বলেছেন, যুগের চাহিদা বিবেচনায় নিয়ে কারিগরি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোতে  নতুন ট্রেড কোর্স চালু করা হবে। তিনি বলেন, দেশের কারিগরি শিক্ষার মানোন্নয়নে শিক্ষক প্রশিক্ষণ জোরদার করতে উন্নত দেশ থেকে প্রশিক্ষক আনার উদ্যোগ নেওয়া হবে।

 

আজ বাংলাদেশ সচিবালয়ে  আন্তর্জাতিক শ্রম সংস্থা (আইএলও) এর কান্ট্রি ডিরেক্টর Tuomo Poutiainen’র নেতৃত্বে এক প্রতিনিধিদল শিক্ষা উপমন্ত্রীর সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে এলে তিনি এসব কথা বলেন।

 

উপমন্ত্রী বলেন, এদেশে কারিগরি শিক্ষা নিয়ে যেসব উন্নয়ন সহযোগী ও দাতা সংস্থা কাজ করছে তাদের  কর্মকাণ্ড সমন্বিত করতে পারলে  এ খাতের অগ্রাধিকার প্রাপ্ত কর্মসূচি বাস্তবায়ন অনেক সহজ হবে।

 

সাক্ষাৎকালে প্রতিনিধিদল বাংলাদেশের বৃত্তিমূলক ও কারিগরি শিক্ষা খাতে আরো ব্যাপকভিত্তিক অবদান রাখার আগ্রহ প্রকাশ করে। তাঁরা বলেন, বৈশ্বিক বাজারে যে বিপুল সংখ্যক দক্ষ কর্মীর চাহিদা রয়েছে তা কাজে লাগাতে পারলে বাংলাদেশের অর্থনীতি-সহ আর্থসামাজিক উন্নয়ন আরো ত্বরান্বিত হবে। এক্ষেত্রে কারিগরি শিক্ষা হতে পারে একটি অন্যতম হাতিয়ার।  

 

বাংলাদেশের কারিগরি শিক্ষার শিক্ষাক্রম উন্নয়ন-সহ বিভিন্ন বিষয়ে পররামর্শক হিসেবে আইএলও কাজ করতে প্রস্তুত রয়েছে বলে তাঁরা জানান।

 

#

 

  জাহিদ/ফারহানা/রফিকুল/সেলিম/২০১৯/১৮৩০ ঘণ্টা

 

 

তথ্যবিবরণী                                                                                        নম্বর : ৪৪৭৩
 
বহুমুখী পাটপণ্যের উৎপাদন বৃদ্ধিতে বিদেশি বিনিয়োগকে উৎসাহিত করা হবে
                                                            --- বস্ত্র ও পাট মন্ত্রী
 
ঢাকা, ১১ অগ্রহায়ণ (২৬ নভেম্বর) :
বস্ত্র ও পাট মন্ত্রী গোলাম দস্তগীর গাজী বলেছেন, বাংলাদেশ পাটকল কর্পোরেশন (বিজেএমসি)’র মিলসমূহ আধুনিকায়ন করে মিলগুলোতে বহুমুখী পাটপণ্যের উৎপাদন বৃদ্ধি করার জন্য বিদেশি বিনিয়োগকে উৎসাহিত করা হবে। 
বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে আজ চীনের  রাষ্ট্রদূত লি জিমিং এর নেতৃত্বে প্রতিনিধিদলের সাথে বৈঠককালে মন্ত্রী এ কথা বলেন। এ সময় দু’দেশের বস্ত্র ও পাট শিল্পের দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য ও এর অগ্রগতি নিয়ে আলোচনা হয়।
মন্ত্রী জানান, বাংলাদেশে এই প্রথম পাট থেকে সোনালি ব্যাগ তৈরি হচ্ছে। সরকার গৃহীত নানামুখী উদ্যোগসমূহ যথাযথ বাস্তবায়নের মাধ্যমে সারা বিশ্বে পাটের ব্যবহার ছড়িয়ে দিতে কর্মপরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে। এই সোনালি ব্যাগ পরিবেশবান্ধব। এটি খুব সহজে পচে যায়। ফলে পরিবেশ দূষণের বিষয়টি এতে নেই। ফলে ঐতিহ্যবাহী  সোনালি আঁশ বাংলাদেশের সমৃদ্ধিকে আরো ত্বরান্বিত করতে সহায়তা করবে।
বৈঠকে চীনের  রাষ্ট্রদূত জানান, বাংলাদেশ ও চীনের বন্ধুত্বের সম্পর্ক ঐতিহাসিক। চীন আন্তরিকভাবে বিশ্বাস করে বাংলাদেশ তাদের বন্ধুপ্রতীম দেশ। দু’দেশের নিয়মিত বাণিজ্য বৃদ্ধির মাধ্যমে এ সম্পর্ক আরো জোরদার হচ্ছে। সেজন্য তারা বস্ত্র ও পাটখাতে বাংলাদেশের সাথে ব্যবসায় বাণিজ্য সম্প্রসারণ ঘটাতে চায়। পাটজাত পণ্যের উদ্যোক্তারা এ পর্যন্ত ২৮৫ রকমের বহুমুখী পাটপণ্য উৎপাদন করেছেন। 
বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়ের সচিব লোকমান হোসেন মিয়া, বিজিএমসি’র চেয়ারম্যান আব্দুর রউফ-সহ মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা এ সময় উপস্থিত ছিলেন।
#
সৈকত/ফারহানা/সঞ্জীব/জয়নুল/২০১৯/১৮৫০ঘণ্টা
 
তথ্যবিবরণী                                                                                        নম্বর : ৪৪৭২
 
সুপরিকল্পিত নগরায়নের মধ্য দিয়ে আধুনিক সভ্যতাকে এগিয়ে নিতে হবে
                                                --- গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী
 
ঢাকা, ১১ অগ্রহায়ণ (২৬ নভেম্বর) :
গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম বলেছেন, সুপরিকল্পিত নগরায়নের মধ্য দিয়ে আধুনিক সভ্যতাকে এগিয়ে নিতে হবে। বিশ্বের কাছে বাংলাদেশের স্থাপত্য উন্নত ও সমৃদ্ধ হিসেবে তুলে ধরতে হবে।
আজ সচিবালয়ে গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান কর্তৃক গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রীর নিকট পূর্বাচল নতুন শহর প্রকল্পের ‘এশিয়ান টাউনস্কেপ জুরি’স অ্যাওয়ার্ড ২০১৯’-এর ক্রেস্ট ও সনদপত্র হস্তান্তর অনুষ্ঠানে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।
গণপূর্ত মন্ত্রী আরো বলেন, আন্তর্জাতিক অঙ্গনে প্রাপ্ত এ অ্যাওয়ার্ড বাংলাদেশের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ অর্জন। অপূর্ব স্থাপত্য নকশার পূর্বাচল নতুন শহর প্রকল্প বহির্বিশ্বে দেশের ভাবমূর্তি উজ্জ¦ল করেছে। এ প্রকল্প পরিকল্পিত নগরায়নের ক্ষেত্রে মাইলফলক হয়ে থাকবে।
গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ের সচিব মোঃ শহীদ উল্লা খন্দকার, রাজধানী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের সদস্যবৃন্দ, সংশ্লিষ্ট প্রকল্পের পরিচালক উজ্জ¦ল মল্লিক-সহ মন্ত্রণালয়ের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তারা অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।
 
#
ইফতেখার/ফারহানা/সঞ্জীব/জয়নুল/২০১৯/১৮২৫ঘণ্টা
তথ্যবিবরণী                                                                                        নম্বর : ৪৪৭১
 
শ্রম অধিকার প্রতিষ্ঠায় আইএলও'র সহযোগিতা প্রয়োজন
                                            --- আইনমন্ত্রী
 
ঢাকা, ১১ অগ্রহায়ণ (২৬ নভেম্বর) :
আইন, বিচার ও সংসদ বিষয়ক মন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, আন্তর্জাতিক শ্রম সংস্থার বিগত সম্মেলনে বাংলাদেশ যেসব অঙ্গীকার করেছে এবং বাংলাদেশের ওপর যেসব দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে সেগুলো সফলভাবে সম্পন্ন করার জন্য আইএলও এর কোন সহযোগিতার প্রয়োজন হলে  আইএলও তা দিতে প্রস্তুত আছে বলে কান্ট্রি ডিরেক্টর ঞঁড়সড় চড়ঁঃরধরহবহ তাঁকে জানিয়েছেন।
আজ সচিবালয়ে আন্তর্জাতিক শ্রম সংস্থা (আইএলও) এর কান্ট্রি ডিরেক্টরের সঙ্গে এক বৈঠক শেষে মন্ত্রী এসব কথা বলেন। বাংলাদেশে শ্রম অধিকার প্রতিষ্ঠার সকল ব্যাপারে আইএলও- এর সহযোগিতা প্রয়োজন এবং এর সাথে সম্পর্ক আরো বৃদ্ধি করা প্রয়োজন বলে মন্ত্রী জানান।
কান্ট্রি ডিরেক্টর আইএলও প্রতিষ্ঠার শতবছর পূর্তি উপলক্ষে বিভিন্ন আয়োজনের কথা জানিয়েছেন বলেও এ সময় মন্ত্রী জানান।
#
রেজাউল/ফারহানা/সঞ্জীব/জয়নুল/২০১৯/১৭৫০ঘণ্টা

তথ্যববিরণী                                                                                                           নম্বর : ৪৪৭০

রবিউল হুসাইনের মৃত্যুতে তথ্যমন্ত্রীর শোক

ঢাকা, ১১ অগ্রহায়ণ (২৬ নভম্বের) : 

কবি ও স্থপতি রবিউল হুসাইনের মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ।

গতকাল সোমবার মধ্যরাতে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৬৭ বছর।

ভাষা ও সাহিত্যে অনবদ্য অবদানের জন্য ২০১৮ সালে একুশে পদকপ্রাপ্ত এই গুণী স্থপতির অকাল প্রয়াণে মন্ত্রী তার শোকবার্তায় বলেন, রবিউল হুসাইনের মৃত্যুতে দেশ একজন কবি, স্থপতি, শিল্প-সমালোচক, প্রাবন্ধিক, সংস্কৃতিকর্মী ও মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিচিহ্ন সংরক্ষককে হারালো।

এছাড়া, পৃথক এক শোকবার্তায় তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান এবং তথ্যসচিব আবদুল মালেক স্থপতি রবিউল হুসাইনের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন।    

#

আকরাম/অনসূয়া/পরীক্ষিৎ/আসমা/২০১৯/১৬২০ ঘণ্টা

তথ্যবিবরণী                                                                                                          নম্বর : ৪৪৬৯   

কবি ও স্থপতি রবিউল হুসাইন-এর মৃত্যুতে স্পিকারের শোক

ঢাকা, ১১ অগ্রহায়ণ (২৬ নভেম্বর) : 

স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী একুশে পদকপ্রাপ্ত কবি, মুক্তিযুদ্ধ জাদুঘর ও মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতি সংরক্ষণ কেন্দ্রের ট্রাস্টি স্থপতি রবিউল হুসাইন-এর মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন।

এক শোকবার্তায় স্পিকার বলেন, রবিউল হুসাইন-এর মৃত্যুতে দেশ একজন বরেণ্য কবি ও স্থপতিকে হারালো। তাঁর বর্ণাঢ্য কর্মময় জীবন জাতি শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করবে। স্পিকার মরহুমের রুহের মাগফেরাত কামনা করেন এবং তাঁর শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানান।

এছাড়া, কবি ও স্থপতি রবিউল হুসাইন-এর মৃত্যুতে ডেপুটি স্পিকার মোঃ ফজলে রাব্বী মিয়া এবং চিফ হুইপ নূর-ই-আলম চৌধুরী গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন।

#

তারিক/অনসূয়া/পরীক্ষিৎ/আসমা/২০১৯/১৬০০ ঘণ্টা

তথ্যববিরণী                                                                                                          নম্বর : ৪৪৬৮

রবিউল হুসাইনের মৃত্যুতে সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রীর শোক

ঢাকা, ১১ অগ্রহায়ণ (২৬ নভম্বের) :   

একুশে পদকপ্রাপ্ত কবি ও স্থপতি রবিউল হুসাইনের মৃত্যুতে সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন। তিনি তাঁর আত্মার মাগফেরাত কামনা করেন এবং শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানান।

এক শোকবার্তায় প্রতিমন্ত্রী জানান, একুশে পদকসহ বিভিন্ন পুরস্কার বিজয়ী রবিউল হুসাইন এর মৃত্যুতে দেশ একজন বরেণ্য কবি ও স্থপতি ব্যক্তিত্বকে হারালো। তাঁর মৃত্যুতে বাংলাদেশের অপূরণীয় ক্ষতি হল। রবিউল হুসাইন ছিলেন বাংলাদেশের সাহিত্য, সংস্কৃতি ও স্থাপত্য শিল্পের ক্ষেত্রে অগ্রগণ্য ব্যক্তিত্ব। তাঁর অবদানের জন্য বাংলাদেশের মানুষ তাঁকে দীর্ঘকাল স্মরণে রাখবে।

#

ফয়সল/অনসূয়া/পরীক্ষিৎ/রেজ্জাকুল/কুতুব/২০১৯/১৫৫৫ ঘণ্টা

তথ্যববিরণী                                                                                                             নম্বর : ৪৪৬৭

স্থপতি রবিউল হুসাইনের মৃত্যু

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদ্যাপন জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির শোক

ঢাকা, ১১ অগ্রহায়ণ (২৬ নভম্বের) :   

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদ্যাপন জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির ‘সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও প্রদর্শনী আয়োজন উপকমিটি’র সদস্য একুশে পদকপ্রাপ্ত কবি ও স্থপতি রবিউল হুসাইনের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন কমিটির সভাপতি জাতীয় অধ্যাপক ড. মো. রফিকুল ইসলাম এবং কমিটির প্রধান সমন্বয়ক ড. কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী।

 কমিটির সভাপতি বলেন, রবিউল হুসাইন জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদ্যাপন জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির কাজে বিশেষভাবে সম্পৃক্ত ছিলেন। আগামী বছরের ১৭ মার্চ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদ্যাপনের ঐতিহাসিক মুহূর্তকে বরণ করে নিতে সমগ্র জাতি যখন প্রস্তুত হচ্ছে, এই সময়ে তাঁর মৃত্যুতে অপূরণীয় ক্ষতি হয়ে গেলো।

 বাংলা ভাষা ও সাহিত্যে অসাধারণ অবদান রাখা রবিউল হুসাইনের স্মৃতির প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির প্রধান সমন্বয়ক বলেন, তিনি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শ ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে ধারণ করতেন। তাঁর সাহিত্যকর্ম ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে দেশপ্রেমে উজ্জীবিত করবে।

#

নাসরীন/অনসূয়া/পরীক্ষিৎ/জসীম/কুতুব/২০১৯/১৫৩০ ঘণ্টা 

তথ্যবিবরণী                                                                                                          নম্বর : ৪৪৬৬  

একনেকে ৭ হাজার ৩১৩ কোটি টাকা ৬টি প্রকল্প অনুমোদন

ঢাকা, ১১ অগ্রহায়ণ (২৬ নভেম্বর) : 

জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহি কমিটি (একনেক) প্রায় ৭ হাজার ৩১২ কোটি ৫৫ লাখ টাকা ব্যয় সম্বলিত ৬টি প্রকল্প অনুমোদন করেছে। এর মধ্যে সরকারি অর্থায়ন প্রায় ২ হাজার ৭৭৮ কোটি ৫৬ লাখ টাকা, সংশ্লিষ্ট সংস্থার নিজস্ব অর্থায়ন ৩২১ কোটি ৬৯ লাখ টাকা এবং বৈদেশিক ঋণ ৪ হাজার ২১২ কোটি ৩০ লাখ টাকা।

প্রধানমন্ত্রী এবং একনেক-এর চেয়ারপারসন শেখ হাসিনা-এর সভাপতিত্বে আজ রাজধানীর শেরে বাংলা নগরস্থ এনইসি সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত একনেক-এর সভায় এ অনুমোদন দেওয়া হয়েছে।

অনুমোদিত প্রকল্পসমূহ হলো: সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের ৪টি প্রকল্প যথাক্রমে ‘পালবাড়ী-দড়াটানা-মনিহার-মুড়ালী জাতীয় মহাসড়ক (এন-৭০৭) এর মনিহার হতে মুড়ালী পর্যন্ত ৪-লেনে উন্নীতকরণ’ প্রকল্প; ‘বগুড়া-সারিয়াকান্দি জেলা মহাসড়ক (জেড-৫০৩২) উন্নয়ন এবং বাঙালি নদীর ওপর আড়িয়ারঘাট সেতু নির্মাণ’ প্রকল্প; ‘মাগুরা-নড়াইল (আর-৭২০) আঞ্চলিক মহাসড়কের বাঁক সরলীকরণসহ যথাযথ মান ও প্রশস্ততায় উন্নীতকরণ’ প্রকল্প এবং ‘ফেনী (মাস্টারপাড়া)-আলোকদিয়া-ভালুকিয়া-লস্করহাট-ছাগলনাইয়া (শান্তিরহাট) জেলা মহাসড়কটি যথাযথ মান ও প্রশস্ততায় উন্নীতকরণ’প্রকল্প; গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয়ের ‘নাটোর রোড (রুয়েট) হতে রাজশাহী বাইপাস পর্যন্ত সংযোগ সড়ক নির্মাণ (২য় সংশোধিত)’ প্রকল্প এবং বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের ‘ঢাকা এবং পশ্চিমাঞ্চলীয় গ্রিড সঞ্চালন ব্যবস্থা সম্প্রসারণ’ প্রকল্প।

অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল, পরিকল্পনামন্ত্রী এম এম মান্নান, কৃষিমন্ত্রী মোঃ আব্দুর রাজ্জাক, তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহ্‌মুদ, স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী মোঃ তাজুল ইসলাম, শিল্পমন্ত্রী নুরূল মজিদ মাহমুদ হুমায়ুন, স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালিক, বাণিজ্য মন্ত্রী টিপু মুনশি, গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম, ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান এবং সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রীবর্গ সভার কার্যক্রমে অংশগ্রহণ করেন।

সভায় মন্ত্রিপরিষদ সচিব, প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব, এসডিজি’র মুখ্য সমন্বয়ক, পরিকল্পনা কমিশনের সদস্যবৃন্দ, সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়সমূহের সচিব এবং ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।

#

শাহেদুর/অনসূয়া/পরীক্ষিৎ/আসমা/২০১৯/১৩০০ ঘণ্টা                                                                                      

তথ্যবিবরণী                                            &nbs

cc3d3a81c6a7fe965189d0c1b783cf98.docx cc3d3a81c6a7fe965189d0c1b783cf98.docx

Share with :

Facebook Facebook